ভারতের ১০টি স্টার্টআপ এখন মস্কোয়

4

মস্কোয় চলছে অ্যকসিলেটর প্রোগ্রাম। ভারতের ১০ টি স্টার্টআপ এতে অংশ নিচ্ছে। আয়োজন করেছে বোম্বে আইআইটির সোসাইটি ফর ইনোভেশন অ্যান্ড আন্ত্রেপ্রেনিওরশিপ এবং রাশিয়ার গ্লোবাল ভেঞ্চার অ্যালায়েন্স। এই প্রোগ্রামের নাম ইন্ডিয়া রাশিয়া ব্রিজ ফর ইনোভেশন। এই প্রোগ্রামটি স্পন্সর করছে ভারত সরকারের ডিপার্টমেন্ট অব সায়েন্স অ্যান্ড টেকনোলজি। ভারত এবং রাশিয়ার মধ্যে উদ্যোগপতিদের এই এক্সচেঞ্জ প্রোগ্রামে থাকছে দু সপ্তাহের জন্যে অ্যাকসিলারেশন। শিক্ষামূলক এবং প্রায়োগিক দিক যেমন থাকবে তেমনি থাকবে নেটওয়ার্কিংয়ের সুযোগ। দুদেশের সমৃদ্ধ সংস্কৃতির আদান প্রদানেরও সুযোগ থাকবেই এই এক্সচেঞ্জ প্রোগ্রামে। স্টার্টআপ সংস্থাগুলির কর্তাদের থাকা খাওয়া যাতায়াত সমস্ত ব্যয় বহন করছে স্পন্সর সংস্থারা। গত ১৩ সেপ্টেম্বর দিল্লিতে সুষমা স্বরাজ এবং রাশিয়ার উপপ্রধানমন্ত্রী দিমিত্রি রোগোজিন দুদেশের বাণিজ্যিক সৌহার্দের বিষয়ে একমত হয়েছেন। দুদেশের ব্যবসা তিন হাজার কোটি মার্কিন ডলারের লক্ষ্যমাত্রায় পৌঁছনর ব্যাপারে দুদেশই আন্তরিক। এবং এই ধরণের এক্সচেঞ্জ প্রোগ্রাম ফিবছর করার ব্যাপারেও উৎসাহ দেখিয়েছেন দুই দেশের সরকার। অক্টোবরের ১৫-১৬ তারিখ গোয়ায় BRICS এর সামিটের আগে এই ধরণের এক্সচেঞ্জ প্রোগ্রাম দুদেশের বাণিজ্যিক সমঝোতাকে আরও দৃঢ় করবে বলেই মনে করা হচ্ছে।

ভারতের যে দশটি সংস্থা এই সুযোগ পেল তারা হল:-

দিভির তিওয়ারির অনলাইন সেলস টিমের নজরদারি করার অ্যাপলিকেশন Field Assist, হরিত সোনির বিগ ডেটা অ্যানালাইসিসের স্টার্টআপ Ecolibrium Energy, ডক্টর সুভদ্রা দ্রাবিড়ার বায়োটেক সংস্থা Transcell Biologics, অমরদীপ সিংয়ের পরিধান যোগ্য অ্যাডভেঞ্চার ক্যামেরা সংস্থা Frodo, বিশাল শাহর চিকিৎসায় ব্যবহারযোগ্য ওয়ারলেস প্ৰযুক্তি সংস্থা A3 RMT, বিনিল জ্যাকোবের মেডিক্যাল ডিভাইস কোম্পানি Medprime Technologies. আরও একটি হেল্থকেয়ার পরিষেবা সংক্রান্ত সংস্থা আদিত্য কুলকার্নির CareNx Innovations, অমিত মৌর্যর সংস্থা Algosurg Products চিকিৎসাবিজ্ঞানে বিশেষ করে সার্জারিতে অমিতের সংস্থা বৈপ্লবিক পরিবর্তন আনতে চলেছে। অমৃতা দেশাইয়ের Campus Time কলেজ ক্যাম্পাসের ছাত্রছাত্রীদের বিভিন্ন কমিউনিটিতে যুক্ত রাখা এবং শিক্ষার পাশাপাশি পারস্পরিক যোগাযোগ তৈরি করার এই অ্যাপ্লিকেশন অভিনবত্বের কারণে দারুণ জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে খুব দ্রুতই। আর দশম সংস্থাটি হল আনমোল ভিজের ShopsUp, হাইপার লোকাল অ্যাপ যা আপনাকে স্থানীয় অফলাইন দোকান পাটের হদিস দেবে।

এই যাত্রায় কোনও পূর্বাঞ্চলীয় সংস্থার এই প্রোগ্রামে ঠাঁই হয়নি তো কী হল। জানা রইল এরকম সুযোগ আবারও পাওয়া যেতে পারে। ফলে আসছে বছর আবার হবে।