মুম্বইয়ের পার্পেল স্টাইল ল্যাবস পেল ৩ কোটির ফান্ড

1

এই প্রথম কোনও ফ্যাশন হাউসে বিনিয়োগ করল কলকাতা অ্যাঞ্জেলস নেটওয়ার্ক। মুম্বাইয়ের পার্পেল স্টাইল ল্যাবস খুব বেশিদিন হয়নি শুরু হয়েছে। ২০১৫ সালের অগাস্টে যাত্রা শুরু করেন অভিষেক অগরওয়াল। আই আই টি মুম্বাইয়ের ছাত্র অভিষেক ডয়েচে ব্যাঙ্কে কাজ করতেন। কিন্তু উদ্যোগপতি হওয়ার ইচ্ছেটা মাথা চাড়া দেয়। স্বপ্ন দেখেন দেশের সব থেকে বড় ফ্যাশন হাউস হয়ে উঠতে হবে। প্রধান সমস্যা যেটা সমাধান করার চেষ্টা করে পিএসএল সেটা হল দেশে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা অসংখ্য ডিজাইনার রয়েছেন, যারা দারুণ কাজ করছেন কিন্তু যাদের প্রোডাক্ট বাজার পাচ্ছে না শুধু মাত্র মার্কেটিং কিংবা বাণিজ্যিক দক্ষতার অভাবে, তাদের জন্যে একটি সলিউশন নিয়ে আসছে এই সংস্থা। অভিষেক জানিয়েছেন, তাঁর প্ল্যাটফর্মে বিভিন্ন প্রিমিয়াম ব্র্যান্ড যেমন থাকবে তেমনি থাকবে নানান লাক্সারি ব্র্যান্ড। পাশাপাশি মধ্যবিত্তের নাগালে থাকা রিটেল ব্র্যান্ড গুলিকেও জায়গা দেবেন ওরা। এককথায় প্রায় সব ধরণের ব্র্যান্ড নিয়েই ময়দানে নামতে তৈরি পিএসএল। পার্পেল স্টাইল ল্যাবসের পাখির চোখ গোটা দেশের বাজার। তাদের সংস্থা ডিজাইনার পোশাককে ছড়িয়ে দিতে সাহায্য করবে। ছোটো ব্র্যান্ডও এর উপকার পাবে। এই কাজটা করতে ফান্ডের প্রয়োজন ছিল পিএসএল-এর। ক্যালকাটা অ্যাঞ্জেলস নেটওয়ার্কের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট রাহুল কায়ান এবং নিখিল গোলচার উদ্যোগে মাত্র এক মাসেরও কম সময়ের মধ্যেই এই বিনিয়োগ সম্পন্ন হয়েছে বলে ক্যান সূত্রে জানা গিয়েছে। তিন কোটি টাকার সিড ফান্ডিং তুলে নিলো পি এস এল। ক্যান ছাড়াও এই বিনিয়োগে যুক্ত ছিল লেটস ভেঞ্চার এবং আইআইটি বম্বে এবং ডয়েচে ব্যাঙ্কের কয়েকজনও। এই অর্থ সংস্থার প্রযুক্তি এবং ব্যবসা বাড়ানোর কাজে ব্যবহৃত হবে বলে জানিয়েছেন রাহুল কায়ান।