বাজারে উজ্জ্বল মোবাইল নির্ভর ব্যবসা

0


ভারতের বাইরে মোবাইল নির্ভর ব্যবসায় সাফল্যের চাবিকাঠি কী? একদল উদ্যোক্তা যাদের ব্যবসা মোবাইল নির্ভর টেকস্পার্কসে বসেছিল তাদেরই চাঁদেরহাট। টেকস্পার্কসের মঞ্চে প্যানেলে আলোচনায় অংশ নেন রিভিয়ার ল্যাঙ্গোয়েজ টেকনোলজিসের সহ প্রতিষ্ঠাতা এবং ডিরেক্টর অরবিন্দ পাণি, প্রসেস নাইনের কর্নধার রাকেশ কাপুর, এয়ারলয়ালের প্রতিষ্ঠাতা এবং সিইও রাজা হুসেইন এবং এক্সোটেলের সিইও ও সহ প্রতিষ্ঠাতা ঈশ্বর শ্রীধরণ।

দেশে মোবাইল ব্যবসা কী শীর্ষবিন্দুতে পৌঁছে গিয়েছে? রিভিয়ার টেকনোলজির অরবিন্দ বলেন, বিভিন্ন ধরনের মোবাইল প্ল্যাটফর্মের আলাদা আলাদা ইস্যু রয়েছে, গুরুত্বও ভিন্ন ভিন্ন। রিভিয়ার বিভিন্ন ডিভাইস যেমন মোবাইল প্রস্তুতকারক, ট্যাবলেট, সেট টপ বক্স, গেমস অ্যাপ্লিকেশন ডেভেলপারদের আঞ্চলিক ভাষা বোঝার ব্যবস্থা করে, বাজারকে নানাভাবে দেখে। ‘ভারতের বিভিন্ন ট্রেডিশনাল মাধ্যম যেমন স্থানীয় ভাষায় শুরু এবং বিস্তার লাভ করেছে, ডিজিটাল মিডিয়ার বিস্তার কিন্তু একটা ভাষাতেই, ইংরেজি। মজার বিষয় হল দেশের ৯০ শতাংশ মানুষ ইংরেজি বোঝেন না, পড়তে জানেন না। ফলে ডিজিটাল কনটেন্টকে স্থানীয় ভাষায় প্রকাশ করতে পারলে বিশাল বড় বাজার পাওয়ার সম্ভাবনা উজ্জ্বল’। শীর্ষে পৌঁছতে হলে এই ক্ষেত্রটিকে আরও অনেক পথ পেরোতে হবে।

প্রসেস নাইনের রাকেশ আরও বিস্তারিতভাবে বলেন, ছোট শহরের মানুষের ভাষার সামীবদ্ধতা বুঝতে হবে। প্রসেস নাইন হল অনলাইন ক্লাউড বেসড মেশিন এবং মেশিনের সাহায্যে অনুবাদ প্রযুক্তি। বর্তমানে ৯টি ভারতীয় ভাষা বোঝাতে পারে। পরের ভার্সান হল MOX Mobile। এটা হল মোবাইলের জন্য অনুবাদ, কিপ্যাড এবং ফন্ট। ২১টি ভারতীয় ভাষা বোঝাতে পারে। বিলিয়ন ডলারের ব্যবসা বেঙ্গালুরুর স্টার্টআপ এক্সোটেলের কর্নধার ঈশ্বর, ক্লাউডে এসএমই-এর এক ধরনের বিজনেস ফোন প্রযুক্তি সরবারাহ করেন। বলেন, লক্ষ মানুষের জন্য ব্যবসা তৈরি করছেন তিনি। এক্সোটেল সংস্থাগুলিকে একটা নম্বর দিয়ে দেয়, যার সাহায্যে একইসঙ্গে ফোন পেতে পারে, ফোন করতে পারে এবং এসএমএস করতে পারে। এটা হল সেলস, মার্কেটিং এবং কাস্টমার সাপোর্ট টুলস, ব্যবসায়ীক বুদ্ধি এবং পর্যালোচনার একটা ড্যাশবোর্ড। ভারতে ইন্টারনেট বেসড প্রযুক্তিতে বেশ জোর দেওয়া হয়। তিনি বলেন, ‘অনেক ক্ষেত্র রয়েছে যেখানে গ্রহকদের জন্য সিস্টেম তৈরি করে পরিষেবা দেওয়া যায়’।

মোবাইল নির্ভর ব্যবসা এবং অন্যদের মধ্যে লড়াই তৈরি করে দিয়ে এয়ারলয়ালের রাজা হুসেইন বলেন, ব্যবসা এবং অন্য সবকিছু থাকলেও মোবাইল অ্যাপে এখনও কোনও ঐক্য নেই। এয়ারলয়াল হল ডিজিটাল মোবাইল অ্যাডভারটাইজমেন্ট র্স্টাটআপ। গতবছর তাদের প্রথম প্রডাক্ট মোবাইল বিজ্ঞাপনের মঞ্চ লাড্ডু লঞ্চ করে। গুগুল প্লে স্টোরে লাড্ডু পাওয়া যায়, যারা সব মোবাইল অ্যাড ক্যাম্পেইনের সঙ্গে থাকার প্রতিশ্রুতি দেয়।

মোবাইল অ্যাপের দুটি গুরুত্বপূর্ণ অংশ নিয়ে কথা বলেন রাজা। একটি হল গ্রাহক পাওয়া এবং অন্যটি হল ধরে রাখা। সেগমেন্টে দুটিই অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। ‘এটা ঠিক যে গ্রাহক পাওয়ার পর তাঁকে ধরে রাখাও বেশ কঠিন। আমরা সেক্ষেত্রে কিছু করতে পারি না। একমাত্র যা করতে পারি সেটা হল ফিডব্যাক নেওয়া। এই বিষয়টি গোটা পরিস্থিতি পালটে দিতে পারে এবং সেগমেন্টের উন্নতি ঘটাতে পারে’, তিনি বলেন।