কম্পিউটার গেমিং এর নতুন যুগের শুরু, পথ দেখাচ্ছেন রজত ধারিওয়াল

0

ম্যাডর্যাহট গেমস লাস ভেগাসে অনুষ্ঠিত সিইএস ২০১৬ তে তাদের নতুন এবং পৃথিবীর সর্বপ্রথম শিশু ও পরিবারের পরিধানযোগ্য (wearable) গেমিং প্লাটফর্ম ‘সুপারস্যুট’ এর লঞ্চিং এর কথা ঘোষণা করলো। ‘সুপারস্যুট’ হল এমন এক পরিধানযোগ্য (wearable) গেমিং প্লাটফর্ম যা গেম খেলার সময় স্ক্রীনের দিকে তাকিয়ে থাকাকে (স্ক্রিন টাইম) কমিয়ে সামাজিক যোগাযোগ, শারীরিক কসরত ইত্যাদিকে বাড়াতে সাহায্য করে ও আপনার শিশু ও পরিবারকে বাড়ির বাইরে খেলাধুলো করতে উৎসাহিত করে।

নেপালের কীর্তিপুরে ১০০০ দুঃস্থ পরিবারের সহায়তায় হাত বাড়িয়ে দিলেন রজত ধারিওয়াল
নেপালের কীর্তিপুরে ১০০০ দুঃস্থ পরিবারের সহায়তায় হাত বাড়িয়ে দিলেন রজত ধারিওয়াল

‘সুপারস্যুট’ কে ডিজাইন করা হয়েছে একুশ শতকের নতুন খেলার দুনিয়ার (প্লে স্পেস) কথা মাথায় রেখে – যা খেলাধুলোর জগতে স্ক্রীন ভিত্তিক ইন্ডোর গেম ও হারিয়ে যাওয়া আউটডোর গেমের মাঝামাঝি এক নতুন ‘তৃতীয় বিশ্ব’ হয়ে উঠছে। আজকের যুগে খোলা মাঠ ও ফাঁকা জায়গার অভাবে বাচ্ছাদের খেলাধুলোর জায়গা হয়ে উঠেছে বাড়ির পিছনের ফাঁকা জায়গা থেকে সামনের বাগান, পার্কিং লট থেকে বেসমেন্ট, টিরেস থেকে করিডোর, এমনকি পাড়ার মাঝের এক চিলতে রাস্তাটা।

এই নতুন লঞ্চিং সম্পর্কে ম্যাডর‍্যাট গেমস এর প্রতিষ্ঠাতা রজত ধারিওয়াল বললেন, “আজ আমরা সিইএস-এ সুপারস্যুট এর লঞ্চিং এর কথা ঘোষণা করতে পেরে অত্যন্ত আনন্দিত। সুপারস্যুট বাচ্ছাদের স্ক্রীনভিত্তিক গেমগুলির থেকে বাচ্ছাদের ফিরিয়ে আনতে সাহায্য করবে। আমার মনে হয় সুপারস্যুটই হল আগামী প্রজন্মের গেমিং এর ভবিষ্যৎ”। রজত আরও বলেন, “বাচ্ছাদের কাছে বাইরে খেলাধুলো করা চিরকালই প্রিয় ছিল। কিন্তু ইদানীং কালে শহরাঞ্চলে স্থানাভাব ও মফঃস্বল ইত্যাদি জায়গায় তাদের নিরাপত্তা জনিত কারণে বাইরে খেলাধুলো অনেকটাই কমে এসেছে। চারিদিকে যেন একটা দমবন্ধ করা জেলখানার পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে, আর সুপারস্যুট বাচ্ছাদেরকে তাদের সেই হারিয়ে যাওয়া মুক্তির আনন্দ এনে দেবে”।

সুপারস্যুটে দুটি ইউনিট রয়েছে – ভেস্ট এবং গ্লাভ। ভেস্ট হিট সংগ্রহ করে ও স্কোর দেখায় (আলো, শব্দ ও হ্যাপ্টিক বা স্পর্শভিত্তিক ফীডব্যাক)। গ্লাভ এর দ্বারা খেলোয়াড়রা ট্রিগারের মাধ্যমে নিজেদের মধ্যে বীম আদানপ্রদান করতে সক্ষম হয় ও এইভাবে তাদের মধ্যে যোগাযোগ তৈরি হয়। এতে রয়েছে একটি প্রোপ্রাইটারি জেসচার ইঞ্জিন যা বিভিন্ন প্রকারের জেসচার বা অঙ্গক্ষেপ গ্রহণ করে ও এর ফলে খেলোয়াড়রা বিভিন্ন স্পেশাল পাওয়ার লাভ করে। এবং এইসবের মাধ্যমে এটি টেলিকিনেসিসকে করে তোলে আরও আকর্ষণীয়!

এর পাশাপাশি এটি বিভিন্ন এক্সটার্নাল ‘বটস’ (রিমোট কনট্রোল গাড়ি থেকে নতুন জমানার কানেক্টেড টয়) সাপোর্ট করে যা এর সঙ্গে সংযুক্ত করা যায় ও কনট্রোল করা যায়। সুপারস্যুট এর এসডিকে গেম ডেভলপারদের নতুন গেম নির্মাণেও সাহায্য করে। আর সুপারস্যুটের স্মার্টফোন অ্যাপের মাধ্যমে বাবা মায়েরা একদিকে যেমন তাঁদের ছেলেমেয়েদের ফিটনেস সংক্রান্ত তথ্যগুলি হাতের মুঠোয় পেয়ে যাবেন তেমনই সহজে বাচ্ছাদের লোকেশান ট্র্যাক করার মাধ্যমে তাদের নিরাপত্তাও সুনিশ্চিত হবে। এর জন্য এটি ব্যবহার করে ব্লুটুথ প্রযুক্তি যা বিভিন্ন নতুন টাইটেল ডাউনলোডিং, ফ্রেমওয়ার আপগ্রেড ও প্লেয়ারদের প্রোফাইলের তথ্য ডাউনলোডে কাজে আসে।


স্টোরি- TCI

অনুবাদ- শঙ্খশুভ্র গাঙ্গুলি